স্ক্যাবিস (Scabies)

শেয়ার করুন

বর্ণনা

সারকোপটিস স্ক্যাবি হোমিনিস নামক আণুবীক্ষণিক পরজীবীর দ্বারা ত্বকে চুলকানি সৃষ্টি হওয়াকে স্ক্যাবিস বলে। বিশ্বের সব স্থানেই এই রোগটি দেখা যায় এবং যে কোনো ব্যক্তি এতে আক্রান্ত হতে পারেন। জনবহুল স্থানে মানুষের মাঝে ত্বকের সংস্পর্শ বেশি হয়ে থাকে বলে স্ক্যাবিস দ্রুত বিস্তার লাভ করে। যেমন হাসপাতাল, চাইল্ড কেয়ার সেন্টার ও নার্সিং হোমে এই রোগের বিস্তার বেশী হয়। কোনো ব্যক্তি স্ক্যাবিসে আক্রান্ত হলে তার যৌনসঙ্গী ও তার সাথে বসবাসরত ব্যক্তিরাও সহজে এই রোগে আক্রান্ত হতে পারে। একই পোশাক, তোয়ালে ও বিছানা একাধিক ব্যক্তি ব্যবহার করলেও অনেক সময় স্ক্যাবিস ছড়ায়। আক্রান্ত ব্যক্তির স্ক্যাবিস শক্ত আবরণযুক্ত হলে এটি আরও সহজে ছড়িয়ে পড়তে পারে। তবে পোষা প্রাণী থেকে স্ক্যাবিস ছড়ায় না।

কারণ

স্ক্যাবিস সৃষ্টিকারী পরজীবীটি আণুবীক্ষণিক এবং এর আটটি পা রয়েছে। এই প্রজাতির স্ত্রী পরজীবী আমাদের ত্বকের নীচের স্তরে গর্ত করে সুড়ঙ্গের ন্যায় স্থান সৃষ্টি করে এবং এর মধ্যে ডিম পাড়ে। ৩-৪ দিনের মধ্যে এই ডিমগুলি ফোটার পর শূককীটগুলি ত্বকের পৃষ্ঠে প্রবেশ করতে থাকে। এই স্থানে লার্ভাগুলি পরিণত হয় এবং আক্রান্ত ব্যক্তির ত্বকের অন্য স্থানে বা অন্য কোনো ব্যক্তির ত্বকে বিস্তার লাভ করতে পারে। এই পরজীবী, পরজীবীর ডিম ও সেগুলির বর্জ্য শরীরে অ্যালার্জিজনিত প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করে।

কুকুর, বিড়াল ও মানুষ ভিন্ন ভিন্ন প্রজাতির পরজীবী দ্বারা আক্রান্ত হয়ে থাকে। এক এক প্রজাতির পরজীবী এক এক ধরনের পোষকের দেহে আশ্রয় নেয় এবং পোষকের দেহের বাইরে বেশিক্ষণ অবস্থান করে না। তাই পশুদের শরীরে স্ক্যাবিস সৃষ্টিকারী পরজীবীর সংস্পর্শের কারণে মানুষের শরীরে সাময়িক প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হতে পারে। কিন্তু এই ধরনের পরজীবীর কারণে মানুষের শরীরে পরিপূর্ণভাবে স্ক্যাবিস দেখা দেয় না।

লক্ষণ

এই রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের মধ্যে চিকিৎসকেরা নিম্নলিখিত লক্ষণগুলি চিহ্নিত করে থাকেন:

চিকিৎসা

চিকিৎসকেরা এই রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের নিম্নলিখিত ঔষধগুলি গ্রহণ করার পরামর্শ দিয়ে থাকেন: 

crotamiton, topical hydrocortisone acetate, topical
ivermectin, topical mupirocin, topical
permethrin, topical lindane, topical

চিকিৎসকেরা এই রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের নিম্নলিখিত টেস্টগুলি করার পরামর্শ দিয়ে থাকেন:  

সেরাম আই-জি-ই (Serum IgE)

ঝুঁকিপূর্ণ বিষয়

সাধারণত নিম্নে লিখিত বিষয়গুলি স্ক্যাবিসের ঝুকিঁ বাড়ায়:

  • জনবহুল পরিবেশ।
  • দারিদ্র্যতার জন্য জীবনযাত্রার মান নিম্ন হওয়া।
  • অস্বাস্থ্যকর জীবনযাপন করা।
  • অনিরাপদ যৌন সংসর্গ।
  • অপরিষ্কার আসবাবপত্র, বিছানা, তোয়ালে ও পোশাক।

যারা ঝুঁকির মধ্যে আছে

লিঙ্গঃ পুরুষ ও নারী উভয়ের মধ্যেই এই রোগ নির্ণয় হওয়ার গড়পড়তা সম্ভাবনা থাকে।

জাতিঃ শ্বেতাঙ্গদের মধ্যে এই রোগ নির্ণয় হওয়ার সম্ভাবনা ১ গুণ কম। কৃষ্ণাঙ্গ, হিস্প্যানিক ও অন্যান্য জাতির মানুষের মধ্যে এই রোগ নির্ণয় হওয়ার গড়পরতা সম্ভাবনা থাকে।

 

সাধারণ জিজ্ঞাসা


উত্তরঃ স্ক্যাবিস এক জাতীয় পরজীবী। মানুষের শরীরে সারকোপটিস স্ক্যাবি হোমিনিস নামক  পরজীবী ২৫০০ বছরেরও বেশি সময় ধরে সমস্যা সৃষ্টি করে আসছে। এগুলি আমাদের ত্বকের নীচের স্তরে গর্ত করে সুড়ঙ্গের ন্যায় স্থান সৃষ্টি করে এবং এর মধ্যে ডিম পাড়ে। এ কারণে ত্বকে প্রদাহ/জ্বালাপোড়া সৃষ্ট হয়। অনেক সময় এই কারণে সৃষ্ট চুলকানির চিকিৎসা সহজেই করা যায়, আবার অনেক ক্ষেত্রে এই রোগ নির্ণয়ে ভুলও হতে পারে। আপনার এ ধরনের সমস্যা থাকলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

উত্তরঃ সংক্রমণের মাধ্যমে স্ক্যাবিস হয়ে থাকে। শরীরের স্পর্শের মাধ্যমে সাধারণত স্ক্যাবিস ছড়ায়। স্ক্যাবিসে আক্রান্ত ব্যক্তির পোশাক ও বিছানা ব্যবহার করলেও স্ক্যাবিস হতে পারে।

উত্তরঃ স্ক্যাবিসের লক্ষণের মাধ্যমে বোঝা যায়। সাধারণত দুই আঙ্গুলের মাঝখানে, কব্জিতে, কনুইয়ের নীচে, হাঁটুতে, কোমর ও নাভীর চারপাশে, বগলে, স্তনবৃন্তেন চারপাশে, পায়ের পাশের ও পিছনের দিকে, যৌনাঙ্গের আশেপাশে ও নিতম্বে স্ক্যাবিসের লক্ষণ দেখা যায়।

হেলথ টিপস্‌

স্ক্যাবিসের পুনঃসংক্রমণ রোধ করতে এবং অন্য ব্যক্তির শরীরে স্ক্যাবিস ছড়িয়ে পড়া ঠেকাতে নিম্নে লিখিত বিষয়গুলি অনুসরণ করুন-

পোশাক পরিষ্কার রাখা: চিকিৎসা নেওয়ার কমপক্ষে ৩ দিন আগে গরম ও সাবানযুক্ত পানি দিয়ে আপনার ব্যবহৃত পোশাক, তোয়ালে ও বিছানা পরিষ্কার করুন। পরে এগুলিকে উচ্চতাপে শুকান।

পরজীবী ধ্বংস করুন: যে ব্যবহৃত দ্রব্যগুলি আপনি পরিষ্কার করতে পারবেন না, সেগুলিকে প্ল্যাসটিক ব্যাগের মধ্যে সিল করে বাসস্থান থেকে কিছুটা দূরে কোনো স্থানে (যেমন গ্যারেজ) সপ্তাহ দুয়েকের জন্য রেখে দিন। সাধারণত এক সপ্তাহ খাদ্য গ্রহণ করতে না পারলে পরজীবীগুলি মারা যায়।

বিশেষজ্ঞ ডাক্তার

ডা: মো: আসিফুজ্জামান

ডার্মাটোলজি এন্ড ভেনেরিওলজি ( চর্ম ও যৌন) ( Dermatology & Venereology)

ডাঃ মাহমুদ চৌধুরী

ডার্মাটোলজি এন্ড ভেনেরিওলজি ( চর্ম ও যৌন) ( Dermatology & Venereology)

প্রফেসর এম ইউ কবির চৌধুরী

ডার্মাটোলজি এন্ড ভেনেরিওলজি ( চর্ম ও যৌন) ( Dermatology & Venereology)

এসোসিয়েট প্রফেসর ডাঃ মোঃ সাইদুর রহমান

ডার্মাটোলজি এন্ড ভেনেরিওলজি ( চর্ম ও যৌন) ( Dermatology & Venereology)

প্রফেসর এম.এন হুদা

ডার্মাটোলজি এন্ড ভেনেরিওলজি ( চর্ম ও যৌন) ( Dermatology & Venereology)